Breaking News
Home / BCS Examination / ঘরে বসেই বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রী তাসফিয়ার মাসে বেতন ৮৬000 টাকা!

ঘরে বসেই বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রী তাসফিয়ার মাসে বেতন ৮৬000 টাকা!

ঘরে বসেই ৮৬000 টাকা বেতনে চাকরি করছেন ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যা*লয়ের ছাত্রী তাসফিয়া আজিম। বাংলাদেশে বসেই তিনি যুক্তরাষ্ট্র*ভিত্তিক ডিজিটাল বিপণন প্রতিষ্ঠান ভাইপার মিডিয়ায় মানব*সম্পদ নির্বাহী হিসেবে কাজ করেন। ২০১৮ সাল থেকে তিনি এই প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে আছেন। এসইওর (সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন) কাজও করেন তিনি। এ ছাড়া যুক্তরাষ্ট্র-ভিত্তিক আরেকটি প্রতিষ্ঠান রব শো আউট-ডোর লাইটিংয়ের সঙ্গে যুক্ত আছেন। এই প্রতি’ষ্ঠানে তিনি ভার্চ্যু’য়াল সহকারী। এভাবে ডিজিটাল মার্কেটিং’য়ের কাজ করে চট্টগ্রামের মেয়ে তাসফিয়া আজিমের আয় এখন মাসে ১০০০ ডলার, অর্থাৎ প্রায় ৮৬ হাজার টাকা।

২০১৩ সালে HSC পাশ করার পর ফটো’শপের কাজ রপ্ত করেছিলেন। Freelancer.com অ্যাকাউন্ট খোলার পর বুঝলেন, এটি একেবারে পেশাদার*দের জায়গা। এরপর আসেন Upwork-এ। সেখানে বিভিন্ন সাক্ষাৎ’কারের পর সপ্তাহ*খানেকের মধ্যে কাজ জুটে যায়। প্রথম কাজটি ছিল ছবি সম্পা’দনা করার। একটি ওয়েব*সাইটের জন্য বেশ কিছু ছবি সম্পা’দনা করে পান ১৫ ডলার। এটিই ছিল প্রথ’ম আয়।   এরপর তাসফিয়ার কাজ বাড়তে থাকে। বাড়িয়ে’ছেন নিজের কাজের ক্ষেত্রও। ফ্রিল্যান্সিং নিয়ে প্রচুর পড়া*শোনা করেছেন। এ ক্ষেত্রে তাঁর প্রশি’ ক্ষক গুগল ও ইউটিউব।

এখন তার বিচরণ ছবি সম্পাদনা, লেখালেখি, ধারা বর্ণনা (Voiceover), অনুবাদ, লোগো-ব্যানার তৈরি, SEO, Digital Marketing, ওয়েবসাইট তৈরি, অ্যাপ ডিজাইন-সহ নানা ক্ষেত্রে। আপওয়ার্কে এক’সময় প্রচুর কাজ করে*ছেন তাসফিয়া। করোনা*ভাইরাসের প্রকোপের এই সময়েও তাসফিয়ার কাট’ছে ব্যস্ত সময়। গ্রাহক বেড়েছে। বেশির ভাগ প্রতিষ্ঠান এখন ডিজি’টাল বিপণনে ঝুঁকছে।

তাসফিয়া জানালেন, করোনা মহা-মারির শুরুর দিকে ফেব্রু’য়ারি মাসে কাজ একটু কমে যায়। কিন্তু পরের মাস থেকে বা’ড়তে থাকে। গত মে মাসে তো টানা ৩০ দিনই কাজ করতে হয়েছে। আয়ও হয়েছে 1000 ডলারের ওপরে। তাদের প্রতিষ্ঠান’টি ডিজি’টাল বিপণন ও SEO সম্পর্কিত সব ধরনের কাজ করে।

এখন কাজ করানোর জন্য লোক খুঁজ’তেই বেশি সময় পার হয় তাসফিয়ার। মূলত ডিজিটাল মার্কেটার’দের সাক্ষাৎকার নেওয়ার পর কাজ দেখেন। পরখ করে সিদ্ধান্ত দেন প্রতিষ্ঠান’কে। তার সিদ্ধান্তের ভিত্তিতে বাংলা*দেশ থেকে নিয়োগ হয় বলে উল্লেখ করেন তাসফিয়া। জানা গেছে, তাসফিয়া বর্তমানে আরলি চাইল্ডহুড ডেভেলপমেন্ট বিষয়ে স্নাত-কোত্তর করছেন ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ে। এর আগে চট্টগ্রামের প্রিমিয়ার বিশ্ব*বিদ্যালয় থেকে কম্পিউটার বিজ্ঞান ও প্রকৌশলে স্নাতক করেছেন।

এ ছাড়া ইংরেজির প্রশিক্ষক হিসেবে আছেন ভাষা শিক্ষা*প্রতিষ্ঠান স্পিকার্স কাউন্সিলে।

তথ্যসূত্রঃ ডেইলি বাংলাদেশ

Check Also

সরকারি চাকরিজীবীদের বেতন স্কেল, গ্রেডিং সিস্টেম ও অন্যান্য সুবিধাদির তালিকা

বাংলাদেশের শিক্ষিত প্রজন্মের যে বিষয়ে সবার আগ্রহ বেশি সেটি হচ্ছে সরকারি চাকরিজীবী হিসাবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Powered by keepvid themefull earn money