Breaking News
Home / BCS Examination / প্রাথমিকের নিয়োগ পরীক্ষা মাস তিনেকের মধ্যেঃ অধিদপ্তর

প্রাথমিকের নিয়োগ পরীক্ষা মাস তিনেকের মধ্যেঃ অধিদপ্তর

বিদ্যালয় খোলার পরই সরকারি প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে বলে জানিয়েছে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর (ডিপিই)। আবেদন জমা নেওয়ার পর পরীক্ষা নেওয়ার জন্য সব প্রস্তুতি গ্রহণ করা হয়েছেও বলে জানিয়েছেন অধিদপ্তরের মহাপরিচালক আলমগীর মুহাম্মদ মনসুরুল আলম।সাংবাদিকদের এসব তথ্য জানিয়েছেন প্রাথমিক

শিক্ষা অধিদপ্তরের (ডিপিই) মহাপরিচালক আলমগীর মুহাম্মদ মনসুরুল আলম। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকার কারণে শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষাও শুরু করা সম্ভব হয়নি। তবে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার পর প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা আবার শুরু করা হবে বলে তিনি জানিয়েছেন। আলমগীর মুহাম্মদ মনসুরুল আলম বলেছেন, করোনা মহামারি চলাকালীন নিয়োগ

সংক্রান্ত টেকনিক্যাল কাজ আমরা এগিয়ে রেখেছি। নিয়োগে ব্যবহারের জন্য সফটওয়্যার ডেভেলপমেন্টের কাজও শেষ হয়েছে। পরীক্ষার বিষয়ে বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) সঙ্গে চুক্তিও সম্পন্ন হয়েছে। গত বছরের ২৪ নভেম্বর আবেদন প্রক্রিয়া শেষে ২০২১ সালের জানুয়ারি অথবা ফেব্রুয়ারিতে পরীক্ষা নেওয়ার পরিকল্পনা করেছিল প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর।

কিন্তু করোনা পরিস্থিতির জন্য পরিকল্পনা বাস্তবায়ন হয়নি। ডিপিই মহাপরিচালক বলেন, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ। এরপরও অধিদপ্তর বসে নেই। আমরা নিয়োগ পরীক্ষার মতো মহাযজ্ঞ আয়োজনের প্রস্তুতি হিসেবে কাজ করে যাচ্ছি। আয়োজনও প্রায় সম্পন্ন। সরকার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার সঙ্গেই নিয়োগ পরীক্ষার তারিখ সময় জানিয়ে দেওয়া হবে।

প্রাথমিক শিক্ষক হিসেবে ৩২ হাজার শিক্ষককে নিয়োগ দেবে সরকার। এর মধ্যে প্রাক-প্রাথমিক পর্যায়ে নিয়োগ পাবেন ২৫ হাজার ৬৩০ জন। এই নিয়োগে আবেদন পড়ে ১৩ লাখ ৫ হাজারের বেশি।

About pressroom

Check Also

‘বঙ্গবন্ধুর বাংলায় ৩২ ছাড়া গতি নাই’

সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা স্থায়ীভাবে ৩২ বছর করার দাবিতে রাজধানীর শাহবাগে শিক্ষার্থীদের সমাবেশ চলছে। বৃষ্টি …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Powered by keepvid themefull earn money